1. info@monpuratimes.com : admin :
মনপুরায় অতিজোয়ারে নিম্মাঞ্চল প্লাবিত, বিচ্ছিন্ন হওয়ার পথে সংযোগ সড়ক | Monpura Times
সংবাদ শিরোনাম :
মনপুরায় জাতীয় গ্রীড থেকে বিদ্যুৎ সংযোগের দাবীতে হাজারো মানুষের মানববন্ধন ও স্মারকলিপি পেশ মনপুরায় ৪ শতাধিক পরিবারের মাঝে রেডক্রিসেন্ট সোসাইটির ত্রান বিতরন মনপুরায় ঘূর্নীঝড় ইয়াসের প্রভাবে ৪ সহস্রাধীক বাড়ি-ঘর ক্ষতিগ্রস্ত, পানিবন্ধী ২০ হাজার মানুষ, ১ শিশুর মৃত্যু মনপুরায় অতিজোয়ারে নিম্মাঞ্চল প্লাবিত, বিচ্ছিন্ন হওয়ার পথে সংযোগ সড়ক মনপুরায় ঘূর্ণীঝড় “যশ” মোকাবেলায় প্রস্তুতিমূলক সভা অনুষ্ঠিত মনপুরায় ৩ শতাধিক জেলের মানববন্ধন, জাটকা ও নিষিদ্ধ কারেন্ট জালের বিরুদ্ধে প্রশাসনিক ব্যবস্থা নেওয়ার দাবী মনপুরা-চরফ্যাশন নৌরুটে অতিরিক্ত ভাড়া আদায়, প্রশাসনের বেঁধে দেওয়া ভাড়া মানছেনা লঞ্চ কর্তৃপক্ষ মনপুরা ৫৭০ পরিবারের মাঝে ভিজিডি চাউল বিতরন মনপুরায় প্রধানমন্ত্রীর উপহার সামগ্রী ঘরে ঘরে পৌঁছে দিলেন ইউএনও ১ হাজার মানুষের মাঝে স্বাস্থ্য সুরক্ষা সামগ্রী বিতরন করেছে “জাগ্রত মনপুরা”
বিজ্ঞপ্তি :
আমাদের পত্রিকায় আপনার ব্যবসার বিজ্ঞাপন দিতে যোগাযোগ করুন contact@monpuratimes.com অথবা admin@monpuratimes.com ।
মনপুরায় অতিজোয়ারে নিম্মাঞ্চল প্লাবিত, বিচ্ছিন্ন হওয়ার পথে সংযোগ সড়ক

মনপুরায় অতিজোয়ারে নিম্মাঞ্চল প্লাবিত, বিচ্ছিন্ন হওয়ার পথে সংযোগ সড়ক

মোঃ ছালাহ উদ্দিন, বিশেষ প্রতিনিধিঃ

ঘূর্নিঝড় ইয়াসের প্রভাবে মেঘনায় অস¦াভাবিক জোয়ার প্রবাহিত হচ্ছে। ফলে ভোলার বিচ্ছিন্ন দ্বীপ উপজেলা মনপুরার নিম্মাঞ্চল প্লাবিত হয়েছে। জোয়ারের তোড়ে হাজীর হাট ও সাকুচিয়া সংযোগ সড়কটি বিচ্ছিন্ন হওয়ার পথে। নিম্মাঞ্চল প্লাবিত হওয়ায় বেড়ীবাঁধের বাহিরে অবস্থিত বাড়ি-ঘরগুলো ডুবে গেছে। এতে করে মানুষ চরম দূর্ভোগে পড়েছে।

সরেজমিনে গিয়ে দেখা যায়, মঙ্গলবার দুপুরের জোয়ার অতিমাত্রায় প্রবাহিত হওয়ায় হাজীর হাট ইউনিয়নের সোনার চর এলাকায় পাকা সড়কের উপর দিয়ে পানি প্রবেশ করে উত্তর চরযতিন এবং সোনার চর এলাকার অধিকাংশ বাড়ি ঘরে পানি প্রবেশ করেছে।

এছাড়া দাসের হাট এলাকায় বেড়ীবাধের বাহিরে অবস্থিত বাড়ি-ঘরগুলো জোয়ারের পানিতে ডুবে গেছে। বিচ্ছিন্ন কলাতলীর চর, ডালচর, চর মামুনসহ কয়েকটি চর ডুবে যাওয়ায় খবর পাওয়া গেছে। এতে কয়েক হাজার মানুষ পানিবন্ধী হয়ে চরম দূর্ভোগ পোহাচ্ছে।

এদিকে ঘূর্নিঝড় ইয়াসের প্রভাবে উপজেলার হাজীর হাট থেকে সাকুচিয়া যাওয়ার প্রধান সড়কটির নীচ থেকে জোয়ারের তীব্রতায় মাটি সরে গিয়ে প্রবলবেগে জোয়ারের পানি ভিতরে প্রবেশ করতে দেখা গেছে। যেকোন সময় সড়কটি বিচ্ছিন্ন হওয়ার আশংকা করা হচ্ছে।

সড়কটি বিচ্ছিন্ন হলে উপজেলার সাথে দুইটি ইউনিয়নের সহজ যোগাযোগ বিচ্ছিন্ন হয়ে যাবে। এতে করে ভোগান্তিতে পড়বে হাজারো মানুষ।

খবর পেয়ে ঝুকিপূর্ন সংযোগ সড়কটি পরিদর্শন করেন মনপুরা উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যান শেলিনা আক্তার চেীধূরী ও উপজেলা নির্বাহী অফিসার মোঃ শামীম মিঞা।

এব্যাপারে পানি উন্নয়ন বোর্ডের উপসহকারী প্রকৌশলী আবদুর রহমান বলেন, কোথাও বেড়ীবাঁধ বিচ্ছিন্ন হয়নি। তবে পাড়া সড়কের যে স্থানে পানি প্রবেশ করছে সেখানে জিও ব্যাগের বস্তা ফেলবেন বলে জানান তিনি।

উপজেলা নির্বাহী অফিসার মোঃ শামীম মিঞা বলেন, অতিজোয়ারে ৪টি গ্রামে পানি প্রবেশ করেছে। সবগুলো এলাকা পরিদর্শন করেছি। ৫টি স্থানের বেড়ীবাঁধ বিচ্ছিন্ন ছিল, তার মধ্যে এপর্যন্ত ৪টির সংস্কার হয়ে গেছে, বাকি ১টির কাজ চলছে। ঘূর্নিঝড় মোকাবেলায় সকলের সহযোগীতা কামনা করেন তিনি।

সংবাদটি আপনার সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *




সর্বশেষ খবর

এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা বা ছবি অনুমতি ছাড়া নকল করা বা অন্য কোথাও প্রকাশ করা সম্পূর্ণ বেআইনি । সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত © monpuratimes.com 2020.
Design & Developed BY ThemesBazar.Com